রবিবার, নভেম্বর ১৭, ২০১৯

শ্রাবণী সিংহের একগুচ্ছ কবিতা

সেনসেক্সের ঘোড়া

বাতিল ঘোড়ারা গেছে অন্তমিল ভাঙা রাস্তায় ...
সেনসেক্সের সূচক ঘোড়াগুলি উঠছে, নামছে ভাগ্য করছে নির্ধারণ

তাতে জীবনের সেনসেক্স কতটা লাফাবে?

ইচ্ছে হয়... অমন অম্ল-মিঠে শীতবেলায় উদবাস্তু কলোনীর
বুনো আমড়ার গাছটা
ছুঁয়ে আসতে

রাশ টেনে ধরে নিজের ভেতরঅন্য কেউ

সেনসেক্সের গ্রাফ শিখর ছুঁয়েছেে ততক্ষণ।

ফাঁকা ঘরের আভিজাত্য

সময় কখনও পরচুলা পরায়
কখন বাঁদরটুপি
খাপছাড়া কিছু লোকেরএখনও ঔদ্ধত্যই সম্বল।
............

বছর ফুরিয়ে আসে
শংকা আর স্বপ্ন দুটোই ঘিরে থাকে অনুতে
আমি এবং আমার পৃথিবী..
জেদ ,অনটন আর কুলের আচারের গন্ধ
ফাঁকা ঘরের আভিজাত্য,
কাউকে দেখাতে হয় না
সদম্ভে বেড়িয়ে পড়ে
এক গুহাযুগ আড়াল ঠেলে।

একাকীত্বে তুমি

ভালোবাসা আমায় সবই দেয় দূর থেকে,
দু-কাপ চায়ের উষ্ণতা নিয়ে আমি একা,

গোলাপকাঠের দু-মুখো টেবিলে

উপভোগ করছিপূর্ণিমার খৈয়ামি রুবাই

এই সলিচিউড ধরে রাখি বলেই না তুমি।
একাকীত্ব না থাকলে তুমিও নেই বশে।