মঙ্গলবার, নভেম্বর ১৯, ২০১৯

প্রয়াত ভারতীয় থিয়েটার ও চলচ্চিত্র জগতের নক্ষত্র গিরিশ কারনাড

অন্যদেশ ডেস্ক , ১০ জুন সোমবার

চলে গেলেন গিরিশ কারনাড । ১৯৩৮-২০১৯ আয়ুকালে নাটক, সাহিত্য, সিনেমায় সর্বতছিল তাঁর অবাধ বিচরণ। সিনেমার পাশাপাশি নাটকেও দিকপাল ছিলেন গিরিশ কারনাড।১৯৭০ সালে কন্নড় ছবি ‘সংস্কার’ দিয়ে যাত্রা শুরু করেন কারনাড। টিভি সিরিজ ‘মালগুডি ডেজ’-এ অভিনয় করেন তিনি। ১৯৭১ সালে কন্নড় ছবি ‘বংশবৃক্ষ’-র হাত ধরে পরিচালক হিসেবে ডেবিউ করেন কারনাড। এ ছবির হাত ধরেই সেরা পরিচালক হিসেবে জাতীয় পুরস্কারও পান তিনি। ১৯৭৪ সালে পদ্মশ্রী সম্মানে ভূষিত করা হয় তাঁকে। ১৯৯২ সালে কারনাড পান পদ্মভূষণ।

ষাটের দশকের গোড়ার দিকে নাট্যকার হিসেবে প্রথম পরিচিতি লাভ করেন কারনাড।

।১৯৩৮-এর ১৯ মে ত্কালীন বম্বে শহরে জন্ম হয়েছিল গিরিশের। চার ভাই-বোনের মধ্যে তৃতীয় ছিলেন তিনি। তাঁর প্রাথমিক পড়াশোনা কর্নাটকে। অঙ্ক এবং সংখ্যাতত্ত্বে স্নাতক হওয়ার পর রাজনীতি এবং অর্থনীতি নিয়ে অক্সফোর্ডে পড়াশোনা করেন।

চার দশকের বেশি সময় ধরে নাট্য চর্চার সঙ্গে যুক্ত থেকেছেন তিনি। বহু নাটক লিখেছেন। হিন্দি ছাড়াও আরও বেশ কয়েকটি ভাষায় অভিনয় করেছিলেন গিরিশ। পরিচালক হিসেবেও কাজ করেছিলেন।

দীর্ঘদিনের অসুস্থ ছিলেন জ্ঞানপীঠ জয়ী এই প্রখ্যাত ব্যক্তিত্ব। একাধারে অভিনেতা অন্যদিকে এ নাট্যকার, গিরিশ করনাদের জীবন-দীপ্তি বিভিন্নভাবে বিচ্ছুরিত হয়েছে ভারতীয় সংস্কৃতির মননে। শুধুমাত্র অভিনেতা হিসাবেই থেমে থাকেননি গিরিশ। রাজনৈতিক চিন্তনের ক্ষেত্রেও তাঁর অসামান্য বোধ গিরিশ করনাদকে আরও বেশি প্রাসঙ্গিক করে তুলেছিল ভারতীয় সংস্কৃতিতে। বেঙ্গালুরুতে নিজের বাড়িতে প্রয়াত হন কন্নড়ভূমের অন্যতম সেরা শিল্পী । মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৮১ বছর।